কৃষি প্রযুক্তিগবাদি পশু পালনছাগল পালনপ্রানিসম্পদসাম্প্রতিক পোষ্ট

ছাগলের খামারের মাচা তৈরির পদ্ধতি

ছাগলের খামার বাংলাদেশে প্রেক্ষাপটে একটি লাভজনক প্রকল্প। বহু তরুণ যুবক এই ছাগলের খামার গড়ে বেকারত্ব দূর করেছেন। কিন্তু প্রায়ই অনেক খামারি ছাগলের খামাদের মাচা সঠিক ভাবে তৈরি করতে পারেন না। তাদের জন্যই মুলত আজকেই এই পোস্টটি। ছাগলের মাচা বা বাসস্থান ছন, গোল পাতা, খড়, টিন বা ইটের তৈরি হতে পারে। তবে ঘরের ভিতর বাঁশ বা কাঠের মাচাঁ তৈরি করে তার উপর ছাগল রাখতে হবে। প্রথম পদ্ধতিঃ মাচা তৈরি : ছাগলের ঘর যে ধরনের হোক না কেন ঘরের ভেতরে বাঁশ বা কাঠের মাচা তৈরি করে তার ওপর ছাগল রাখতে হবে। একটি মাচা তৈরি করতে ১৫০-২০০ টাকা খরচ হয়। বিভিন্নভাবে ছাগলের মাচা তৈরি করা যায়। বাঁশের বাতা দিয়ে চকির মতো করে করা যায়। আবার বাঁশের বাতা মোটা সুতা দিয়ে বুনিয়ে ফোল্ডিং (Folding) মাচা তৈরি করা যায়, যা রাতে ছাগলের জন্য ব্যবহার করে সকালে মুড়িয়ে/গুটিয়ে উঠিয়ে রাখা যায়। কম জায়গায় ফোল্ডিং মাচা ব্যবহার করা সুবিধাজনক। কাঠ...

বিস্তারিত পড়ুন
গবাদি পশু পালনগোখাদ্য তৈরিকরণছাগল পালনপ্রানিসম্পদসাম্প্রতিক পোষ্ট

সহজ পদ্ধতিতে ছাগলের খাদ্য ব্যবস্থাপনা

সহজ পদ্ধতিতে ছাগলের খাদ্য ব্যবস্থাপনা ছাগল পশ্চিমবঙ্গের অতি গুরুত্বপূর্ণ পশু সম্পদ। ছাগল আমদের দেশে দরিদ্র জনগোষ্ঠীর আয়ের অন্যতম প্রধান উৎস। ছাগল পালন আমাদের দেশে অনেক কৃষকই করে থাকেন। কিন্তু কোন ধরণের খাদ্য খাওয়ালে ছাগল সুস্থ থাকবে অর্থাৎ সহজে কীভাবে খাদ্য ব্যবস্থাপনা করবেন? তা দেখে নেওয়া যাক - ছাগলের খাদ্য ব্যবস্থাপনা – ছাগলকে রাস্তার ধার, পুকুর পাড়, জমির আল, পতিত জমি বা পাহাড়ের ঢালে বেঁধে বা ছেড়ে ৮ - ৯ ঘণ্টা ঘাস খাওয়াতে পারলে খুব উপকার হবে। এ ধরণের সুযোগ না থাকলে প্রতি ২০ কেজি ওজনের ছাগলের জন্য দৈনিক ০.৫ – ১ কেজি পরিমাণ কাঁঠাল, ইপিল, ঝিকা, বাবলা ইত্যাদি গাছের পাতা অথবা এদের মিশ্রণ দেওয়া যেতে পারে। প্রতিটি ছাগলকে দৈনিক ২৫০ - ৩০০ গ্রাম ঘরে প্রস্তুতকৃত দানাদার খাদ্য দেওয়া যেতে পারে। ১০ কেজি দানাদার খাদ্য মিশ্রণে যেসব উপাদান থাকা প্রয়োজন, তা হল- চাল ভাঙ্গা ৪ কেজি, ঢেঁকি ছাঁটা চ...

বিস্তারিত পড়ুন
কৃষির প্রযুক্তিছাগল পালনপ্রানিসম্পদ

ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের কৃত্রিম প্রজনন পদ্ধতি

ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের কৃত্রিম প্রজনন পদ্ধতি   একটি ছাগীকে প্রাকৃতিক নিয়মে পাঁঠা দিয়ে প্রজনন করালে একবারে যে পরিমাণ বীজ ব্যবহৃত হয়, একই পরিমাণ বীজ দিয়ে হিমায়িত কৃত্রিম প্রজনন প্রযুক্তির সাহায্যে পঁচিশ থেকে ত্রিশটি ছাগীকে প্রজনন করানো যায়। এ প্রযুক্তি ব্যবহারে ফল পাওয়া যায় প্রাকৃতিক প্রজনন থেকে ২৫ থেকে ৩০ গুণ বেশি। এই হিমায়িত বীজ ব্যবহার বিলুপ্তপ্রায় ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের কৃত্রিম প্রজননে সফল হয়েছে বাকৃবি’র পশুপালন অনুষদের পশুবিজ্ঞানীরা।   প্রধান গবেষক অধ্যাপক ড. এম. এ. এম. ইয়াহিয়া খন্দকার আশা করছেন, বিলুপ্তপ্রায় ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের সংখ্যা দ্রুত বৃদ্ধির ক্ষেত্রে এ গবেষণা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। এ ছাড়া উদ্ভাবিত এই প্রযুক্তি বাণিজ্যিক উদ্দেশ্যেও কাজে লাগানো যাবে। ইউএসডিএ’র অর্থায়নে একটি প্রকল্পের মাধ্যমে ব্ল্যাক বেঙ্গলের কৃত্রিম প্রজননে গত দুই বছর গবেষণা চালিয়ে আসছে পশু

বিস্তারিত পড়ুন
গবাদি পশু পালনছাগল পালনপ্রানিসম্পদ

ছাগল পালন পরিকল্পনা ও আনুমানিক আয়-ব্যয় হিসাব

ছাগল পালন পরিকল্পনা ও আনুমানিক আয়-ব্যয় হিসাব ছাগল পালনের পূর্বে কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় ভালভাবে জানা প্রয়োজনঃ ক) ছাগল পালনের ও খামার স্থাপনের গুরুত্ব। খ) ছাগলের জাত সম্পর্কে ধারণা। গ) খামারের জায়গা নির্বাচন এবং ছাগলের বাসস্থান। ঘ) স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা। ঙ) ছাগলের খাদ্য ও পুষ্টি ব্যবস্থাপনা। চ) ছাগলের রোগ সমূহের, প্রতিকার ও নিয়ন্ত্রণ। ছ) ৫ টি ছাগলের খামারের বিভিন্ন খরচ ও নীট মুনাফার হিসাব। ছাগল পালনের গুরুত্বঃ ১. দেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নের ছাগলের গুরুত্ব অপরিসীম। জাতীয় অর্থনীতিতে ছাগলের গুরুত্ব উত্তোরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। ২. দেশের দরিদ্র জনগোষ্ঠীর স্বল্প পূঁজি বিনিয়োগ করে ছাগল পালনের মাধ্যমে স্বাবলম্বী হতে পারে। ৩. ছাগল পালন ভূমিহীন কৃষক, দুস্থ মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের একটি উল্লেখযোগ্য উপায়। ৪. ছাগলের মাংস উন্নতমানের প্রাণীজ আমিষের উৎস। ছাগলের দুধ স

বিস্তারিত পড়ুন
কৃষি তথ্যকৃষি প্রযুক্তিকৃষির তথ্যকৃষির প্রযুক্তিছাগল পালনপ্রানিসম্পদ

ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগল পালন পদ্ধতি

ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগল পালন -আদর্শ খামার পদ্ধতি ভূমিকাঃ এদেশে প্রাপ্ত প্রায় ২০ মিলিয়ন ছাগলের প্রায় ৯৩ ভাগ পালন করে ক্ষুদ্র এবং মাঝারী ধরণের খামারীরা। বাংলাদেশে প্রাপ্ত ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের মাংস যেমন সুস্বাদু চামড়া তেমনি আন্তর্জাতিকভাবে উন্নতমানের বলে স্বীকৃত। তাছাড়া ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের বাচ্চা উৎপাদন ক্ষমতা অধিক এবং তারা দেশীয় জলবায়ুতে বিশেষভাবে উৎপাদন উপযোগী। এসব গুনাবলী থাকা সত্ত্বেও ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলের বাণিজ্যিক উৎপাদন এদেশে এখনো চোখে পরার মত প্রসার লাভ করেনি। এর অন্যতম কারণ ইন্টেনসিভ বা সেমি-ইন্টেনসিভ পদ্ধতিতে ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগল পালনের ব্যবহারযোগ্য প্রযুক্তিগত জ্ঞানের অভাব। সরকারী - বেসরকারি ভাবে প্রশিক্ষণের ব্যাবস্থা থাকা সত্ত্বেও আমাদের অনিহা । সার্বিক কৃষির উপরে আমাদের বিরূপ মনোভাব বা অবহেলা । যে ভাবে একটি আদর্শ ছাগল খামার শুরু করবেন : ঘর নির্মাণ : ছাগল সাধারণত: পরিষ্কার, শুষ্ক

বিস্তারিত পড়ুন