এইচ আই পরীক্ষা

      No Comments on এইচ আই পরীক্ষা
ভূমিকাঃ নির্দিষ্ট রোগের বিরুদ্ধে বিদ্যমান রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার পরিমান নির্ণয় করা জন্য হিমাগুটিনেশন ইনহিবিশন (এইচ আই) পরীক্ষা ব্যপকভাবে ব্যবহৃত হয়। ফিল্টার পেপারের সাহায্যে রক্ত নমুনা সংগ্রহ পদ্ধতি অপেক্ষকৃত সহজ, পরিবেশবান্ধব ও সাশ্রয়ী।
রক্ত নমুনা সংগ্রহের উপাদানঃ
  • জীবাণূনাশক দ্রবণ মিশ্রিত তুলা
  • সূচ
  • নির্দিষ্ট মাপের ফিল্টার পেপার স্ট্রিপ
রক্ত নমুনা সংগ্রহের পদ্ধতিঃ
  • হোয়াটম্যান ফিল্টার পেপার (কোড নং ১১১৩৩২০, পুরুত্ব-০.৩ মিমি) থেকে ৫ সেমি x ১.৫ সেমি মাপে কেটে নিতে হবে। উক্ত মাপের প্রতিটি পেপার কেটে নিতে হবে। উক্ত মাপের প্রতিটি ফিল্টার পেপারকে একটি স্ট্রিপ বলা হয়।
  • মুরগীর পাখার শিরা হতে রক্ত নমুনা সংগ্রহ করতে হবে। প্রথমে পাখার শিরার কিছু অংশ জীবাণুনাশক দ্রবণমিশ্রিত তুলা দিয়ে জীবাণুমুক্ত করতে হবে। অতঃপর জীবাণুমুক্ত সুঁচ দিয়ে শিরা ফুটো করে সেখান থেকে ফিল্টার পেপার স্ট্রিপে রক্ত শোষণ করে ছায়ায় শুকাতে হবে। রক্ত শোষণের পর ফিল্টার পেপার স্ট্রিপটি কোন অবস্থাতেই সূযের্র আলোতে শুকানো যাবে না।
  • এরপর  স্ট্রিপটি খামে ভরে গবেষণাগারে প্রেরণ করতে হবে।
  • স্টিপটি থেকে স্টেশনারী দোকানে প্রাপ্ত নির্দিষ্ট মাপের (৬ মিমি ব্যাসার্ধ) একক পাংচার মেশিন দিয়ে পাঁচ (৫) টি অংশ কেটে নিতে হবে।
  • প্রাপ্ত অংশ বা ডিস্ককে ০.৩ মিলি পিবিএস এর সাথে মিশিয়ে কক্ষ তাপমাত্রায় কমপক্ষে এক ঘন্টা বা সে. তাপমাত্রায় এক রাত রেখে দিতে হবে। স্ট্রিপ থেকে রক্তের উপাদানগুলো সহজেই পিবিএস এর মধ্যে ছড়িয়ে পড়বে যা মূল সিরামের ১০ গুণ (১:১০) তরলীকৃত হবে। উক্ত মিশ্রণকে এইচআই পরীক্ষার জন্য নমুনা হিসাবে ব্যবহার করতে হবে।
ব্যবহার সম্ভবনাঃ সারা বাংলাদেশে যে সকল স্থানে মুরগী পালন করা হয়। এটি সব ঋতুতে ব্যবহার করা যায়।
সতর্কতাঃ প্রতিবার রক্ত নমুনা সংগ্রহের পর সূঁচ অবশ্যই জীবাণুমুক্ত করতে হবে।
তথ্য:
তথ্য আপা প্রকল্প