চাষাবাদ

চীনার উৎপাদন প্রযুক্তি

চীনার উৎপাদন প্রযুক্তি মাটি পানি জমে না এমন বেলে দোআঁশ মাটি চীনা চাষের জন্য বেশ উপযোগী। বপনের সময় মধ্য-কার্তিক থেকে পৌষ মাস (নভেম্বর থেকে মধ্য-জানুয়ারি)। বীজের হার চীনা বীজ ছিটিয়ে এবং সারিতে উভয় পদ্ধতিতেই বোনা যায়। ছিটিয়ে বুনলে হেক্টরপ্রতি ২০ কেজি এবং সারিতে বুনলে ১৮ কেজি বীজের প্রয়োজন হয়। সারিতে বীজ বুনলে ২ সারির মাঝে

যশোরের নাভারণে সয়াবিন থেকে দুধ উৎপাদন হচ্ছে

যশোরের নাভারণে সয়াবিন থেকে দুধ উৎপাদন হচ্ছে সয়াবিন থেকে তেল হয় সবাই জানি, কিন্তু সয়াবিন থেকে যে  দুধ হয় এই ধারণা একেবারেই নতুন। অবিশাস্য হলেও সত্যি যশোরের শার্শা উপজেলার নাভারণ সয়াফুড প্রসেসিং সেন্টারে আধুনিক প্রযুক্তির মাধ্যমে সয়াবিন থেকে দুধ তৈরি শুরু হয়েছে। বেসরকারি সংস্থা জাপান বাংলাদেশ কালচারাল এক্সচেঞ্জ অ্যাসোসিয়েশনের (জেবিসিইএ) উদ্যোগে এই দুধ তৈরি করা হচ্ছে।

কাঠলিচু বা আঁশফল চাষ

সমসাময়িক পোষ্ট :এলাচ বা এলাচী চাষ ও পুষ্টিমান বা উপকারিতাকফি চাষছাদে চাষকলা চাষসঠিক নিয়মে পেঁপে চাষ পদ্ধতিসরিষা চাষ ,সরিষা থেকে মধু ও সরিষা তেলের উপকারিতাঘরে মাছ চাষটবে পুদিনা পাতার চাষ, ব্রোকলি , ঢেঁড়শ , লেটুস ,…

ঘাস চাষেই কোটিপতি গফুর শেখ, ঘাস চাষেই কোটিপতি

ঘাস চাষেই কোটিপতি গফুর শেখ

দারিদ্র্যের কাছে পরাজয় না মেনে অক্লান্ত পরিশ্রম করে অনেকের কাছেই আদর্শ হয়ে উঠেছেন নেপিয়ার জাতের ঘাস চাষ করা আবদুল গফুর শেখ। তার বাড়ি গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার কিশোরগাড়ি ইউনিয়নের সুলতানপুর বাড়াইপাড়া গ্রামে। নেপিয়ার ঘাস চাষ করে এখন তিনি হয়েছেন প্রায় কোটি টাকার মালিক। গফুরের পরিবার বলছে, বাবার কাছে থেকে আড়াই বিঘা জমি পেয়েছিলেন তিনি। সেই জমিতে

মরিচ চাষে চরবাসীর ভাগ্য বদল

মরিচ চাষে চরবাসীর ভাগ্য বদল

মরিচ আবাদ করে ভাগ্য বদলে গেছে যমুনা চরের অভাবী মানুষগুলোর। ‘মরিচের ব্যাংক’ হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে যমুনার চর। এই সময় যমুনার বুকে জেগে উঠে বিশাল চর। এসব চরে ধানের পাশাপাশি আবাদ হচ্ছে মরিচ। বর্তমানে যমুনার চরে ধুম পড়ে মরিচ আবাদের। চরের অনেক কৃষকের নিজস্ব কোন জমি নেই। জেগে উঠা চরের ফাঁকা জমি কাজে লাগিয়ে মরিচ চাষ

প্রযুক্তির ছোঁয়ায় চাষাবাদে ভাগ্য বদল

প্রযুক্তির ছোঁয়ায় চাষাবাদে ভাগ্য বদল   ‘মাছে ভাতে বাঙ্গালি’ এই প্রবাদটি হাজার বছরের। আর এই মাছ ভাতের যোগান আসে আমাদের কৃষি থেকেই। দিন যত যাচ্ছে ততটাই ভোগবাদী মানুষের চাহিদা বাড়ছে ক্রমাগত। বাড়ছে দেশের জনসংখ্যা, বাড়ছে খাদ্য চাহিদা। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য দিন দিন কমছে আবাদি জমি। তবুও আমাদের এই ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার খাদ্যের চাহিদা মেটাচ্ছেন কৃষক।

কুমিরের প্রাকৃতিক প্রজনন ও সংরক্ষণ এবং কুমিরের খামার

কুমিরের প্রাকৃতিক প্রজনন ও সংরক্ষণ কুমির সরীসৃপজাতীয় প্রাণী। ইউরোপ ছাড়া পৃথিবীর সব মহাদেশেই প্রায় ১৭.৫ কোটি বছর পূর্বে ডাইনোসরের সমকালীন কুমিরের উদ্ভব ঘটলেও ডাইনোসরের বিলুপ্তির পর অদ্যবিধি এরা প্রথিবীর বিভিন্ন ভৌগলিক পরিবেশে জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণ করে আসছে। আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র প্রায় ৩০টির মতো কুমিরের খামার আছে। খামার গুলো মেক্সিকো উপসাগরের পাড়ে লুসিয়ানা ও ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যে অবস্থিত। একবিংশ

বনসাই চাষ ও যত্ন

বনসাই চাষ ও যত্ন বনসাই একটি জীবন্ত শিল্প।একটি শক্ত কান্ড বিশিষ্ট গাছ কে একটি ছোট পটে রেখে বছরের পরবছর একে বাঁচিয়ে রাখার শিল্পকেই বনসাই বলে।প্রাণের স্পন্দন আর শিল্পকর্মের নান্দনিকতা এক সুতোয় প্রকাশ পায় বলেই বনসাই জীবন্ত শিল্পকর্ম হিসেবে পরিচিত। নগরে ইটের স্থাপনার মধ্যে এক টুকরো সবুজের উপস্থিতি এবং স্বল্প পরিসরে সহজ যত্ন-আত্তিতে বনসাই সংগ্রহ করা যায়

ছাদে ধান চাষ ও হাইড্রোপনিক পদ্ধতিতে তরমুজ চাষ

বাড়ির ছাদে ধান চাষ   যশোর শহরের বকচরের বিহারী ক্যাম্প এলাকার বাসিন্দা রফিকুল ইসলামের নিজের দুই তলা বাড়ির ছাদে ধান চাষ করে তৈরি করলেন ভিন্ন রকম নজির!জনাব রফিকুল ইসলাম বোরো বিআর-২৮ জাতের ধানের চারা লাগান নিজের বাড়ির ছাদের রেলিং দিয়ে করা কৃত্রিম জমিতে। রফিকুলের লাগানো সেই ধানের চারা বড় হয়ে এখন সেখানে ফসল এসেছে। সম্পূর্ণ

টবে পুদিনা পাতার চাষ, ব্রোকলি , ঢেঁড়শ , লেটুস , ধনেপাতার , সবজি , জামরুল চাষ

টবে পুদিনা পাতার চাষ, ব্রোকলি , ঢেঁড়শ , লেটুস , ধনেপাতার , সবজি , জামরুল চাষ   হঠাৎ করে কিনে শাড়ি-জামা পরা যায়, গাছ লাগানো যায় না। লাগানোর অন্তত দু-তিন সপ্তাহ আগে থেকে ভাবতে হয়, সে অনুযায়ী গর্ত করে গর্তে সার-মাটি ভরে রাখতে হয়। ছাদে বাগান এখন অনেকেই করছেন। তথ্য মতে, ঢাকায় প্রায় দেড় হাজার

আগাম সবজি উৎপাদনের কৌশল : টানেল টেকনোলজি

আগাম সবজি উৎপাদনের কৌশল : টানেল টেকনোলজি বাঙালির খাদ্য তালিকায় তিনবেলা যে খাবারটি থাকে তার নাম ভাত। সাথে থাকে মাছ, মাংস, ডিম কিংবা আলু-পটলের ঝোল-চচ্চরি। অথচ এসব খাবার ঠিকঠাক হজম বা পরিপাক হওয়ার জন্য খাবারের যে উপকরণটি প্রতিদিনের খাবার তালিকায় থাকার দরকার সেটা থাকে না। গরিবের খাবার বলে অনেকের মধ্যে এটাকে এড়িয়ে যাওয়ার প্রবণতাও লক্ষ্য

স্টার আপেল: দেশে চাষযোগ্য বিদেশি ফল

স্টার আপেল: দেশে চাষযোগ্য বিদেশি ফল   স্টার আপেল গ্রীস্মম-লীয় ফল। এর বৈজ্ঞানিক নাম Chrysophyllum cainito L.। এটি মূলত সফেদা গোত্রের একটি সুস্বাদু ফল। শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বিদ্যমান দুর্লভ গাছসমূহের মধ্যে একটি হলো স্টার আপেল। এর কয়েকটি গাছ রয়েছে কৃষি অনুষদের মৃত্তিকা বিজ্ঞান বিভাগের সামনে। গাছগুলো বেশ বড়। সবুজ আপেলের মতো ফল ধরে। ফলগুলো পাকলে হাল্কা

ছাদে বেগুনের চাষ পদ্ধতি

ছাদে বেগুনের চাষ পদ্ধতি বেগুন সাধারনত শীতকালের সব্জী । তবে সারা বছর ধরেই এর চাষ করা যায় । শীর্ষ স্থানীয় সব্জী সমুহের মধ্যে বেগুন অন্যতম । বাংলাদেশের ব্যপক জনসাধারণ বেগুন খেতে পছন্দ করে । সব্জী উৎপাদনের দিক দিয়েও বেগুন বাংলাদেশের দ্বিতীয় প্রধান সবজি। বাজারে বেগুন দুই রঙের দেখা যায় ।  সাদা এবং বেগুনী । তবে বেগুনী রঙের

কফি চাষ

কফি চাষ     বাংলাদেশে উন্নত মানের চা উৎপাদনের ইতিহাস অনেক পুরনো। কিন্তু উষ্ণ পানীয়ের মধ্যে গত কয়েক দশকে কফির জনপ্রিয়তা বাড়লেও দেশে কফি চাষের ঐতিহ্য নেই। কিন্তু নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার মুন্সিপাড়া গ্রামের আব্দুল কুদ্দুস কফি চাষেই সুদিনের স্বপ্ন দেখছেন। শুধুমাত্র অদম্য কৌতূহল থেকে তিনি দেশে কফি চাষের ইতিহাস বদলাতে চলেছেন। ২০০৯ সালে নার্সারি মালিক

ছাদে ঢেঁড়স চাষ

ছাদে ঢেঁড়স চাষ ঢেঁড়স শুষ্ক এবং আর্দ্র অবস্থায় ভাল জন্মে। বাংলাদেশের আবহাওয়ায় প্রায় সারা বছরই ঢেঁড়স চাষ করা সম্ভব। তবে খরিপ মৌসুমে এর ব্যাপক চাষাবাদ করা হয়। দো-আঁশ ও বেলে দো-আঁশ মাটি ঢেঁড়শ চাষের জন্য উপযোগী। যে কোন শাকসবজি উৎপাদনের জন্য জমিই উত্তম স্থান । কিন্তু আমরা যারা শহরে বাস করি তাদের তো ছাদ কিংবা

সঠিক নিয়মে পেঁপে চাষ পদ্ধতি

সঠিক নিয়মে পেঁপে চাষ পদ্ধতি পেঁপে একটি অতিপরিচিত সুসাধু ফল। পেঁপে গাছ লম্বা বো‍টাঁযুক্ত ছত্রাকার পাতা বেশ বড় হয় এবং সর্পিল আকারে কান্ডের উপরি অংশে সজ্জিত থাকে। পেঁপে গাছ লম্বায় প্রায় তিন থেকে সাত ফুট হয়। প্রায় কমবেশি সারা বছরেই ফুল ও ফল হয়। পেঁপের কাচাঁ ফল দেখতে সবুজ, পাকা ফল হলুদ বা পীত বর্ণের।

Top