প্রত্যেক গ্রামে মৎস্য উন্নয়ন কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে

প্রত্যেক গ্রামে মৎস্য উন্নয়ন কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী মো. ছায়েদুল হক বলেছেন, ‘প্রত্যেক গ্রামে মৎস্য উন্নয়ন কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে।’

বুধবার রাজধানী ঢাকার প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের সুরমা মিলনায়তনে ‘বঙ্গোপসাগর অঞ্চলে ইলিশ মাছের টেকসই ব্যবস্থাপনা’ শীর্ষক দুই দিনের আঞ্চলিক সেমিনারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বাংলাদেশ মদস্য অধিদফতর, আইআিইডি, বিসিএএস এবং বিএইউ যৌথভাবে এ সেমিনার আয়োজন করে।

ছায়েদুল হক বলেন, ‘এখন ইউনিয়ন পর্যায়ে মৎস্য উন্নয়ন কেন্দ্র গড়ে তোলার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। পর্যায়ক্রমে প্রতিটি গ্রামে মৎস্য উন্নয়ন কেন্দ্র গড়ে তোলা হবে।’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ এখন আর দরিদ্র দেশ নয়। প্রধানমন্ত্রীর শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। বিশ্বের অনেক দেশ এগিয়ে যাওয়ার জন্য শেখ হাসিনাকে অনুসরণ করছে।’

ভারত ও মায়ানমারের প্রতিনিধিদের উদ্দেশ করে মন্ত্রী বলেন, ‘সমন্বিত উদ্যোগ ছাড়া ইলিশ সংরক্ষণ সম্ভব নয়। ভারত, মিয়ানমার ও বাংলাদেশের মানুষকেই ইলিশ রক্ষায় কার্যকর ভূমিকা রাখতে হবে।’

বক্তব্য দেন, মৎস্য অধিদফতরের মহাপরিচালক ড. সৈয়দ আরিফ আজাদ, মিয়ানমারের প্রতিনিধি ড. কিন মং সো, ভারতের ড. উৎপল ভৌমিক, বাংলাদেশের ড. ইশাম ইয়াসিন মোহাম্মদ, পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের চেয়ারম্যান মিহির কান্তি মজুমদার ও প্রফেসর ড. এম এ ওহাব।

স্বাগত বক্তব্য দেন সিনিয়র ফেলো মো. লিয়াকত আলী। সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ সেন্টার ফর অ্যাডভান্স স্টাডিজের নির্বাহী পরিচালক ড. এ আতিক রহমান।

[paypal_donation_button]

সোর্স-দ্য রিপোর্ট

Top